ফেসবুক থেকে আয় করার উপায়

Rate this post

ফেসবুক থেকে আয় করার উপায়

ফেসবুকে গল্প লিখে আয় করার নিয়ম জেনে নিতে পারবেন আমাদের ওয়েবসাইট থেকে। যদি আপনি কোন ব্যক্তির থেকে শুনে থাকেন ফেসবুকে গল্প লিখে আয় করা যায় তাহলে সঠিক তথ্য শুনেছেন। তবে অনেকেই জানেন না ফেসবুকে গল্প লিখে কিভাবে আয় করা যায় এবং কি গল্প লিখলে আপনি ফেসবুকে আয় করতে পারবেন। তার জন্য আমরা আজকে আলোচনা করব ফেসবুকে গল্প লিখে আয় করার নিয়মাবলী।

ফেসবুকে কিভাবে টাকা আয় করা যায়

এটি আপনি অলস সময় আপনার আশেপাশে ঘটে যাওয়া বিভিন্ন ঘটনা গুলো ছোট গল্প আকারে লিখে ফেসবুকে পোস্ট করে আয় করতে পারেন। এতে আপনার জনপ্রিয়তা যেমন বৃদ্ধি হবে তেমনি আপনি আয় করার একটি সুযোগ পাবেন। তাহলে চলুন আমাদের ওয়েবসাইটে নিজের দিকে গিয়ে জেনে নিন ফেসবুকের গল্প লিখে কিভাবে আয় করা যায় এবং কি ধরনের গল্প লিখলে আয় করা যাবে।

বর্তমান সময়ের একটি জনপ্রিয় যোগাযোগের মাধ্যম হচ্ছে ফেসবুক। পৃথিবীর বাংলা ভাষাভাষী অনেক মানুষজন ফেসবুক ব্যবহার করে থাকে। ভারত মহাদেশের অনেক মানুষের দিকে লক্ষ্য করলে দেখা যাবে যে প্রায় সকলেই ফেসবুক অ্যাকাউন্ট রয়েছে। তাই ফেসবুক একাউন্টকে আপনি একটি বড় প্ল্যাটফর্ম হিসেবে দেখতে পারেন এবং এখানে আপনার গল্পের উপর ভিত্তি করে অনেক মানুষকে এক জায়গায় করতে পারেন।

দৈনিক ৫০০ টাকা ইনকাম

আপনি একটি ফেসবুকে গ্রুপ অথবা পেজ খুলে নেবেন। তারপরে আপনার গল্প গুলো সেই গ্রুপ অথবা পেজে পোস্ট করতে থাকবেন। বর্তমান সময়ে বিভিন্ন লোকজন তাদের পাবলিসিটি বাড়াচ্ছে গ্রাহকদের সেই পেজে লাইক দিয়ে অথবা সাবস্ক্রাইব করে। সুতরাং আপনার গল্প যারা পড়বে তারা আপনার পেজটিতে লাইক দিবে এবং গ্রুপে জয়েন করবে। এভাবে আপনি আপনার গল্পের মাধ্যমে জনপ্রিয়তা অর্জন করতে পারবেন ফেসবুকে।

বর্তমান সময়ে মানুষ দিনের অধিকাংশ সময় ফেসবুকে কাটানোর জন্য হার্ডকপি বইয়ের দিকে না গিয়ে ফেসবুকের গল্পগুলো বেশি পড়ছে। বাস্তব জীবন সম্পর্কিত, জীবনের উত্থান-পতন সম্পর্কিত, ভালোবাসার সফলতা-ব্যর্থতা সম্পর্কিত গল্পগুলো ফেসবুকে মান বেশি পড়ে থাকে। তাই আপনার আশেপাশের ঘটে যাওয়া এরকম ঘটনা গুলো সুন্দর ভাষায় ছোট গল্প লিখতে পারেন। এতে আপনার জনপ্রিয়তা যেমন বৃদ্ধি পাবে তেমনি ফেসবুকে আপনার অনেক ফলোয়ার বৃদ্ধি পাবে।

আর এটা কি আপনি একটি অন্যতম প্ল্যাটফর্ম হিসেবে গ্রহণ করতে পারেন। দিনে দিনে আপনার ফেসবুক গ্রুপ বা পেইজে বিভিন্ন ধরনের ইভেন্টের আয়োজন করে গিফট এর ব্যবস্থা করতে পারেন এবং পেজের অথবা গ্রুপের সদস্য সংখ্যা বৃদ্ধি করতে পারেন। এভাবে একটা সময় আপনার যখন গ্রুপে অথবা পেয়েছে ফেসবুকের বন্ধুর সংখ্যা বৃদ্ধি পেতে থাকবে তখন আপনি অন্য খাতে এই পেজটি অথবা গ্রুপটি ব্যবহার করবেন।

যেহেতু এটি একটি সুদূরপ্রসারি কাজ তাই আপনাকে সুন্দর সুন্দর গল্পের মাধ্যমে লোকজনকে আহবান করতে হবে। তারপর আপনার যখন অনেক ফান ফলোয়ার হয়ে যাবে তখন আপনি একজন সেলিব্রেটি হিসেবে বিভিন্ন পণ্য সেল করতে পারবেন। অবশ্যই এই পণ্যটি ভালো হতে হবে এবং পণ্যটিকে যেন মানুষ কিনে তার জন্য অ্যাডভার্টাইজমেন্ট চালাতে হবে।

তাছাড়া ফেসবুক গ্রুপের অন্যান্য সদস্যদের সঙ্গে যোগাযোগ করার জন্য আপনারা এডমিন নিয়োগ দিতে পারেন। প্রয়োজন হলে তাদের মাঝে কিছুটা পারিশ্রমিক দিন। উন্নত ফেসবুকে গল্প লিখে টাকা আয় করা একটি সুদূরপ্রসারি কাজ। অর্থাৎ ফেসবুকে গল্প লেখার মাধ্যমে লোকজনকে আহবান করে সেই লোকজনদের কাছে আপনার পণ্য আপনি বিক্রি করতে পারেন। কারণ বর্তমান সময়ে মানুষ সেলিব্রেটিদের বেশি অনুসরণ করে এবং সেলিব্রেটিদের অনেক কিছুই তারা সাদরে গ্রহণ করে।

লেখালেখি করে আয় করার ওয়েবসাইট পেমেন্ট বিকাশে

তাছাড়া আপনি যদি প্রকৃতপক্ষে গল্প লিখে টাকা আয় করতে চান তাহলে এমন কিছু ওয়েবসাইটের নাম বলব যেগুলোতে আপনারা বিভিন্ন ধরনের গল্প লিখে টাকা আয় করতে পারেন। নিচে গল্প লিখে আয় করার সাইট সম্পর্কিত বিভিন্ন তথ্য দেওয়া হল। এসকল ওয়েবসাইটগুলোতে আপনারা বাংলা গল্প লিখে টাকা আয় করতে পারবেন। সেখানে আপনার গল্পের আকার অনুসারে আপনাকে পেমেন্ট করা হবে ।

jit com BD ওয়েবসাইটে গল্প লিখে

দিয়ে আপনারা খুব সহজে টাকা আয় করতে পারবেন এবং সেই টাকা আপনারা বিকাশে গ্রহণ করতে পারবেন। তাদের প্রধান শর্ত হলো আপনারা যে গল্প লিখবেন তা নিজের মতো করে সম্পূর্ণ এক্সক্লুসিভ গল্প লিখতে হবে।

রোকসানার গল্প নামে একটি জনপ্রিয় ওয়েব সাইট আছে যেখানে আপনারা গল্প লিখতে পারবেন। বর্তমান সময়ে এই ওয়েবসাইটটি খুবই জনপ্রিয় এবং এখানকার ওয়েবসাইট গুলো আপনাদের থেকে বিভিন্ন ধরনের গল্প আহ্বান করবে। সেই টপিক এর উপরে আপনারা যদি গল্প লিখে দিতে পারেন এবং আপনাদের গল্পের মান যদি ভালো হয় এবং আপনার গল্পের ভিউ যদি বেশি হয়, তাহলে আপনি বেশি পরিমাণে টাকা আয় করতে পারবেন।

অনলাইনে তদন্ত ডটকম নামক একটি ওয়েবসাইট রয়েছে। এখানে আপনারা গল্প লেখার পাশাপাশি বিভিন্ন ধরনের খবর লিখতে পারবেন। তাদের ওয়েবসাইটে গল্প লেখার জন্য আপনার প্রতি মাসের 25 তারিখের মধ্যে যেকোনো ধরনের গল্প পাঠিয়ে দিবেন। গল্পের মান অনুসারে আপনার যদি প্রথম দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থান অধিকার করেন পারেন তাহলে নির্দিষ্ট পরিমাণ একটি টাকা আয় করতে পারবেন।

মূলত এটি একটি প্রতিযোগিতামূলক ওয়েবসাইট। এই ওয়েবসাইটে আপনি গল্প লিখে দিতে পারলে আপনার গল্পের মান বৃদ্ধি হবে। কারণ এখানে প্রতিযোগিতা হয়। আশা করি আপনাদের এই পোস্টটি ভালো লেগেছে। সকলেই আমাদের ওয়েবসাইটের সাথে থাকুন এবং পরবর্তী আপডেট পেতে চোখ রাখুন।

ফেসবুকে কত ভিউ কত টাকা
ফেসবুকে কত ভিউ কত টাকা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *